অবশেষে কারামুক্ত সেই আসিয়া বিবি

নেদারল্যান্ডসে চলে যাওয়ার গুজব

প্রকাশ : ০৯ নভেম্বর ২০১৮

অবশেষে কারামুক্ত সেই আসিয়া বিবি

  সমকাল ডেস্ক

পাকিস্তানে ব্ল্যাসফেমি আইনে মৃত্যুদণ্ডাদেশ নিয়ে আট বছর কারাগারে কাটানোর পর অবশেষে মুক্তি পেয়েছেন খ্রিষ্টান ধর্মাবলম্বী নারী আসিয়া বিবি। বুধবার রাতে তাকে মুলতানের কারাগার থেকে ছেড়ে দেওয়া হয়। কট্টরপন্থিদের তুমুল বিরোধিতা ও বিক্ষোভ সত্ত্বেও দেশটির আপিল আদালত গত ৩১ অক্টোবর আসিয়ার মৃত্যুদণ্ড বাতিল করেন। মুক্তির পর আসিয়া বিবি কোথায় গেছেন তা জানা যায়নি। তবে স্থানীয় সংবাদমাধ্যম জানিয়েছে, কঠোর নিরাপত্তার মধ্য দিয়ে তাকে একটি প্লেনে তোলা হয়েছে। অনেকে বলছেন, আসিয়াকে পরিবারসহ নেদারল্যান্ডসে নেওয়া হয়েছে। তবে এ তথ্যকে ভুয়া বলে জানিয়েছে পাকিস্তানি কর্তৃপক্ষ। এর আগে গত সপ্তাহে আসিয়ার স্বামী নিরাপত্তার জন্য বিদেশে আশ্রয় প্রার্থনা করেছিলেন। ওই সময় কয়েকটি দেশ তাদের আশ্রয় দিতে আগ্রহ দেখিয়েছিল। খবর বিবিসি, আলজাজিরা ও এনডিটিভির।

প্রাণনাশের হুমকির মুখে আগেই নেদারল্যান্ডসে পালিয়ে গেছেন আসিয়ার আইনজীবী সাইফ মুলুক। তিনি টেলিফোনে গণমাধ্যমকে নিশ্চিত করেন, আমি আপনাদের যেটা বলতে পারি সেটা হচ্ছে, তাকে মুক্তি দেওয়া হয়েছে। মুলতানের কারাগার থেকে পাঁচ সন্তানের এ জননীকে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে। মুলতান কারাগারের নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক তিন নিরাপত্তা কর্মকর্তা জানিয়েছেন, তাকে রাজধানী ইসলামাবাদের কাছেই বিমানবন্দরে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। তবে প্রাণনাশের হুমকির কারণে তাকে নিরাপদ স্থানে রাখা হয়েছে।

গত মাসের শেষ দিকে খ্রিষ্টান এ নারীর মৃত্যুদণ্ডের রায় বদলে তাকে খালাস দিয়েছিলেন পাকিস্তানের সুপ্রিম কোর্ট, যা নিয়ে দেশটির কট্টরপন্থি দলগুলো তুমুল বিক্ষোভ শুরু করে। সহিংসতা ও বিক্ষোভ থামাতে কট্টরপন্থিদের সঙ্গে সমঝোতায় বাধ্য হয় প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের সরকার। আসিয়ার দেশত্যাগ আটকাতে সরকার ব্যবস্থা নেবে এবং সুপ্রিম কোর্টের রায় পর্যালোচনার আবেদনে বাধা দেওয়া হবে না- এমন শর্তে সমঝোতা হলে বিক্ষোভকারীরা শান্ত হয়।


মন্তব্য যোগ করুণ