কমলগঞ্জ (মৌলভীবাজার) প্রতিনিধি

কয়েকদিনের উত্তপ্ত তাপমাত্রা ও প্রচণ্ড গরমে দুর্বিষহ হয়ে উঠেছে মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জের জনজীবন। টানা ভ্যাপসা গরম আর অনাবৃষ্টির কারণে মানুষের প্রাণ ওষ্ঠাগত। শিশু ও বৃদ্ধদের মধ্যে সর্দি, জ্বর, নিউমোনিয়া, শ্বাসকষ্ট, ডায়রিয়াসহ ঠাণ্ডাজনিত রোগের প্রকোপ বাড়তে শুরু করেছে। হাসপাতাল, চিকিৎসকের প্রাইভেট চেম্বার ও বস্তি এলাকার গ্রাম্য চিকিৎসকদের কাছে গিয়ে তারা চিকিৎসাসেবা গ্রহণ করছেন। নিম্ন আয়ের মানুষ চিকিৎসাসেবা নিতে ছুটছেন সরকারি হাসপাতালের দিকে।

এ বিষয়ে কমলগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক মেডিকেল অফিসার কামরুল ইসলাম বলেন, পরিস্থিতি এখনও নিয়ন্ত্রণের মধ্যে আছে। কয়েকদিনের প্রচণ্ড তাপদাহে শিশুসহ বিভিন্ন বয়সের শতাধিক রোগী হাসাপাতালে ভর্তি হয়ে চিকিৎসাধীন অবস্থায় আছেন। তাদের মধ্যে ডায়রিয়া, নিউমোনিয়া, ভাইরাসজনিত জ্বর, সর্দি ও শ্বাসকষ্ট রোগীর সংখ্যা বেশি।

শ্রীমঙ্গল আবহাওয়া অফিসের অবজারভেশন অফিসার আনিসুর রহমান জানান, কিছুদিন ধরে কমলগঞ্জ-শ্রীমঙ্গলের তাপমাত্রা ৩৩ থেকে ৩৮ ডিগ্রি সেলসিয়াসের মধ্যে ওঠানামা করছে। যদিও মাঝেমধ্যে দমকা হাওয়াসহ বৃষ্টি হলেও গরমের তীব্রতা কমছে না। এ অবস্থা আগামী কিছুদিন অব্যাহত থাকবে।


মন্তব্য