রংপুর

ঢাকা-পঞ্চগড়ে ট্রেন চলবে শনিবার থেকে

প্রকাশ : ০৮ নভেম্বর ২০১৮ | আপডেট : ০৮ নভেম্বর ২০১৮

ঢাকা-পঞ্চগড়ে ট্রেন চলবে শনিবার থেকে

ফাইল ছবি

  সমকাল প্রতিবেদক

অবশেষে দীর্ঘদিনের দাবি পূরণ হচ্ছে। ঢাকা থেকে সরাসরি ট্রেন যাবে সর্ব উত্তরের জেলা পঞ্চগড়ে। রেলপথে ঢাকা থেকে ৬০৫ কিলোমিটার দূরে এ জেলা। দেশের দীর্ঘতম এ রেলপথে শনিবার থেকে ট্রেন চলবে। ঢাকা থেকে দিনাজপুর, ঠাকুরগাঁও হয়ে পঞ্চগড় যাবে ট্রেন।

এতদিন ঢাকা থেকে দিনাজপুর পর্যন্ত চলত দ্রুতযান ও একতা এক্সপ্রেস। এই দুটি ট্রেনই এখন দিনাজপুর হয়ে পঞ্চগড় যাবে। সাপ্তাহিক বিরতি থাকবে না। এতদিন পঞ্চগড়ের যাত্রীরা ঢাকা থেকে দিনাজপুর পর্যন্ত গিয়ে, বাকি পথ শাটল ট্রেনে যেতেন। সরাসরি ট্রেন চালুর পর বন্ধ হয়ে যাবে শাটল ট্রেন।

বৃহস্পতিবার রেলওয়ের সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

দ্রুতযান এক্সপ্রেস পঞ্চগড় স্টেশন থেকে প্রতিদিন সকাল ৭টা ২০ মিনিটে ঢাকার উদ্দেশে যাত্রা করবে। ১০ ঘণ্টা ৫০ মিনিটে ৬০৫ কিলোমিটার পথ পাড়ি দিয়ে ঢাকায় পৌঁছাবে সন্ধ্যা ৬টা ১০ মিনিটে। 

দুই ঘণ্টা বিরতিতে ট্রেনটি পঞ্চগড়ের উদ্দেশে ছেড়ে যাবে। দ্রুতযান এক্সপ্রেস রাত ৮টায় ঢাকা থেকে ছেড়ে পরেরদিন সকাল সাড়ে ৬টায় পঞ্চগড় পৌঁছাবে। একতা এক্সপ্রেস সকাল ১০টায় ঢাকা থেকে ছেড়ে রাত ৮টা ৪৫ মিনিটে পঞ্চগড় পৌঁছবে। রাত ৯টায় পঞ্চগড় থেকে ছেড়ে সকাল ৮টা ১০ মিনিটে ঢাকা ফিরবে।

দুটি ট্রেনেই ১৩টি করে বগির সংস্থান রয়েছে। একতায় ৮৯৪ এবং দ্রুতযানে ৯৪৪টি আসন রয়েছে। তবে এক হাজার ২০০ জন যাত্রী এতে যাতায়াত করতে পারবেন। ঢাকা থেকে পঞ্চগড় পর্যন্ত দ্রুতযান ও একতায় শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত (এসি) বার্থের ভাড়া ১ হাজার ৯৪২ টাকা, এসি চেয়ারের ভাড়া ১ হাজার ৫৩ টাকা, নন এসি বার্থের ভাড়া ১ হাজার ১৪৫ টাকা ও শোভন চেয়ারের ভাড়া ৫৫০ টাকা।

এদিকে ঢাকা থেকে টাঙ্গাইলের বঙ্গবন্ধু সেতু (পূর্ব) স্টেশনের মধ্যে ট্রেন চলাচল শুরু হয়েছে। বৃহস্পতিবার বিকেলে টাঙ্গাইল কমিউটার-১ ও ২ নামের একজোড়া ট্রেন চলাচল উদ্বোধন করেন রেলমন্ত্রী মুজিবুল হক। ট্রেনটি ঢাকা থেকে ছেড়ে যাবে প্রতিদিন বিকেল ৫টা ২০ মিনিটে। 

বঙ্গবন্ধু সেতু (পূর্ব) স্টেশনে পৌঁছাবে সাড়ে ৮টায়। সেখান থেকে প্রতিদিন সকাল ৬টায় ছেড়ে ঢাকা পৌঁছাবে সকাল ৮টা ৫০ মিনিটে।

মন্তব্য


অন্যান্য