রংপুর

বড়পুকুরিয়া কয়লা খনিতে চীনা শ্রমিক নিহত

প্রকাশ : ০৮ নভেম্বর ২০১৮ | আপডেট : ০৮ নভেম্বর ২০১৮

বড়পুকুরিয়া কয়লা খনিতে চীনা শ্রমিক নিহত

  পার্বতীপুর (দিনাজপুর) প্রতিনিধি

দিনাজপুরের বড়পুকুরিয়া কয়লা খনিতে কয়লা চাপা পড়ে এক চীনা শ্রমিক নিহত হয়েছেন।  এ দুর্ঘটনায় আহত হয়েছেন এক বাংলাদেশি শ্রমিক। 

বৃহস্পতিবার ভোর সাড়ে ৪টার দিকে খনির উপরিভাগে এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহত চীনা শ্রমিকের নাম সানজিং সেং।

বড়পুকুরিয়া কয়লা খনির জনসংযোগ কর্মকর্তা ও উপ-মহাব্যবস্থাপক একেএম বদরুল আলম বলেন, কয়লা খনির ভূ-গর্ভ থেকে কয়লা বেল্টের মাধ্যমে ভূ-পৃষ্ঠে আসছিল। এ সময় ভূ-পৃষ্ঠের উপরে সার্ফেস হপারে কয়লা পরিবহন বেল্টে পাথর ও কাদামাটি জমাট বেঁধে ছিল। ওই সব পাথর ও কাদামাটি অপসারণ করতে গিয়ে চীনা শ্রমিক সানজিং সেন ও বাংলাদেশি শ্রমিক রেজাউল ইসলাম কয়লায় চাপা পড়েন। 

চীনা শ্রমিককে উদ্ধার করে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়া হলে সকাল ৭টার দিকে তাকে মৃত ঘোষণা করেন কর্তব্যরত চিকিৎসক। অপর বাংলাদেশি শ্রমিককে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে খনি চিকিৎসা কেন্দ্রে। রেজাউল ইসলামের বাড়ি খনি সংলগ্ন কালু পাড়া গ্রামে। তার পিতার নাম মনছুর রহমান। 

বড়পুকুরিয়া কয়লা খনি পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের আইসি সিরাজুল হক দুর্ঘটনার বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, এ ঘটনায় থানায় ইউডি মামলা হবে।

সংশ্লিষ্ট খবর


মন্তব্য যোগ করুণ

পরের
খবর

বেতন বৈষম্যের প্রতিবাদ জানাতে গিয়ে হামলার শিকার শিক্ষকরা


আরও খবর

রংপুর

হাজী মোহাম্মদ দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়

বেতন বৈষম্যের প্রতিবাদ জানাতে গিয়ে হামলার শিকার শিক্ষকরা

প্রকাশ : ১৪ নভেম্বর ২০১৮

  দিনাজপুর প্রতিনিধি

দিনাজপুরের হাজী মোহাম্মদ দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে (হাবিপ্রবি) বেতন বৈষম্যের প্রতিবাদ জানাতে গিয়ে লাঞ্ছিত ও হামলার শিকার হয়েছেন বলে অভিযোগ করেছেন নতুন পদোন্নতিপ্রাপ্ত শিক্ষকরা।

বুধবার সন্ধ্যা ৬ টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের কোষাধ্যক্ষ প্রফেসর ড. বিধান চন্দ্র হাওলাদারের কক্ষে এই ঘটনা ঘটে।

শিক্ষকরা অভিযোগ করেছেন, এই ঘটনায় তিনজন আহত হয়েছেন। জ্যেষ্ঠ শিক্ষকদের ইঙ্গিতে এই ঘটনা ঘটেছে বলেও দাবি লাঞ্ছনার শিকার শিক্ষকদের।

এদিকে এর প্রতিবাদে ওই শিক্ষকরা বৃহস্পতিবার থেকে সকল ক্লাস ও পরীক্ষা বর্জনের ঘোষণা দিয়েছেন। তবে বিশ্ববিদ্যালয়ের কোষাধ্যক্ষ বলছেন, ওই শিক্ষকরাই উল্টো তাকে অবরুদ্ধ করে রেখে সরকারীরি কাজে বাধা ও জ্যেষ্ঠ শিক্ষকদের সাথে ধাক্কা-ধাক্কি ও অসদাচারণ করেছে।

বিশ্ববিদ্যালয়ের সহকারী অধ্যাপক ফাতিহা ফারহানা, কৃষ্ণ চন্দ্র রায়, হাফিজ আল হোসেনসহ অন্যান্য শিক্ষকরা অভিযোগ করেন, গত ১১ অক্টোবর রিজেন্ট বোর্ডের সভায় তাদের সহকারী অধ্যাপক হিসেবে পদোন্নতি দেওয়া হয়। কিন্তু পদোন্নতি দেয়া হলেও পদ অনুযায়ী বর্ধিত বেতন দেয়া হচ্ছিল না বিশ্ববিদ্যালয়ে পদোন্নতি পাওয়া ৬১ জন শিক্ষককে।

তারা জানান, এই ঘটনার প্রতিবাদ জানাতে ও কারণ জানতে বুধবার বিকেলে বিশ্ববিদ্যালয়ের কোষাধ্যক্ষ প্রফেসর ড. বিধান চন্দ্র হাওলাদারের কক্ষে প্রবেশ করেন ৬১ জন শিক্ষক। কথা চলাকালীন সময় জ্যেষ্ঠ শিক্ষকরা তাদের ধাক্কা দিয়ে কক্ষ থেকে বের করে দেন। এরপর কিছু ছাত্র শিক্ষকদের ইঙ্গিতে তাদের লাঞ্ছিত করেন ও মারধর করেন।

এরপর এই ঘটনায় জড়িতদের বিচারের আওতায় আনা ও বর্ধিত বেতন না দেয়া পর্যন্ত শিক্ষকরা বৃহস্পতিবার থেকে সকল প্রকার ক্লাশ-পরীক্ষা বর্জন করার ঘোষণা দেন।

হাবিপ্রবি’র কোষাধ্যক্ষ প্রফেসর ড. বিধান চন্দ্র হাওলাদার জানান, বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী তাদের বেতন দেয়া হচ্ছে। কিন্তু শিক্ষকরা বুধবার তার কাছে এসে অযৌক্তিকভাবে চাপ প্রয়োগ করেন। এসময় তারা সরকারি কাজে বাধা দেন এবং তাকে অবরুদ্ধ করে রাখেন।

তিনি জানান, খবর পেয়ে জ্যেষ্ঠ শিক্ষকরা আসলে তারা তাদের সঙ্গে অসদাচারণ ও ধাক্কা-ধাক্কি করেন। এক পর্যায়ে সিনিয়র শিক্ষক, কর্মকর্তা-কর্মচারী ও ছাত্ররা তাকে এসে উদ্ধার করে নিয়ে যান।

আন্দোলনরত শিক্ষকদের ওপর হামলার অভিযোগের বিষয়ে তিনি বলেন, তাদেরওপর কে হামলা করেছে, তা তার জানা নেই। ছাত্ররা কিভাবে সেখানে এসেছে, তাও তার জানা নেই।

উল্লেখ্য, ছাত্রীদের যৌন নির্যাতনের অভিযোগে দুই শিক্ষকের স্থায়ী বহিষ্কার ও শাস্তির দাবিসহ ৬ দফা দাবিতে গত ৪ নভেম্বর থেকে প্রতিদিন ঘন্টাব্যাপী অবস্থান কর্মসূচি পালন করে আসছে দিনাজপুর হাজী মোহাম্মদ দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (হাবিপ্রবি) প্রগতিশীল শিক্ষক ফোরাম।

সংশ্লিষ্ট খবর

পরের
খবর

রংপুরে সড়ক দুর্ঘটনায় প্রধান শিক্ষিকার মৃত্যু


আরও খবর

রংপুর

  রংপুর অফিস

রংপুরে সড়ক দুর্ঘটনায় শাহীনুর বেগম (৪৫) নামের এক প্রধান শিক্ষিকার মৃত্যু হয়েছে। সোমবার রাতে নগরীর মডার্ন এলাকায় এ ঘটনা ঘটেছে। শাহীনুর লস্করপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষিকা ছিলেন।

তাজহাট থানার ওসি শেখ রোকনুজ্জামান রোকন জানান, সোমবার রাতে মিঠাপুকুর উপজেলা থেকে শাহীনুর বেগম ও তার স্বামী সুলতান (৫০) মোটরসাইকেলযোগে নগরীর ধাপের দিকে যাচ্ছিলেন। পথে মডার্ন এলাকায় রাস্তায় একটি কুকুর সামনে পড়লে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে মোটরসাইকেলটি ছিটকে পড়ে। এতে শাহীনুর গুরুতর আহত হন। এলাকাবাসী তাকে উদ্ধার করে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পথে তার মৃত্যু হয়। লাশ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

সংশ্লিষ্ট খবর

পরের
খবর

লালমনিরহাটে জমি নিয়ে সংঘর্ষে নিহত ৩


আরও খবর

রংপুর

  লালমনিরহাট প্রতিনিধি

লালমনিরহাটের আদিতমারী উপজেলায় জমি নিয়ে দুই গ্রামবাসীর সংঘর্ষে তিনজন নিহত হয়েছেন।  এ ঘটনায় আহত হয়েছেন উভয় পক্ষের অন্তত ১০ জন। 

মঙ্গলবার সকাল ৭টার দিকে উপজেলার সাপ্টিবাড়ি ইউনিয়নের গিলাবাড়ি নামক এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। 

নিহতরা হলেন- আব্দুল জলিল মিয়া (৫২), গোলাম রব্বানী (৪৬) ও সহিদার রহমান(৩৮)।

আদিতমারী থানার ওসি মাসুদ রানা সমকালকে এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন। 

তিনি বলেন, নিহতদের লাশ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। 

সংশ্লিষ্ট খবর