রাজশাহী

বগুড়ায় বিএনপি নেতাদের বিরুদ্ধে ক্ষোভ ঝাড়লেন কর্মীরা

প্রকাশ : ০৯ জুন ২০১৯

বগুড়ায় বিএনপি নেতাদের বিরুদ্ধে ক্ষোভ ঝাড়লেন কর্মীরা

বগুড়া-৬ (সদর) আসনে উপনির্বাচন উপলক্ষে বিএনপির মতবিনিমিয় সভা- সমকাল

  বগুড়া ব্যুরো

বগুড়া-৬ (সদর) আসনে উপনির্বাচন উপলক্ষে বিএনপির মতবিনিমিয় সভা হয়েছে। দলীয় প্রার্থী গোলাম মোহাম্মদ সিরাজের পক্ষে রোববার এর আয়োজন করে শহর বিএনপি।

শহরের খান্দার এলাকায় মৌচাক কমিউনিটি সেন্টারে এ মতবিনিময় সভায় ওয়ার্ড পর্যায়ের নেতাকর্মীদের অনেকেই নেতাদের বিরুদ্ধে ক্ষোভ প্রকাশ করেন। নিজেদের নানা আক্ষেপের কথা তুলে ধরেন।

এ সময় দলীয় নেতাদের বিচলিত হতে দেখা যায়। তবে দলীয় প্রার্থীর পক্ষে নেতাকর্মীরা একসঙ্গে কাজ করার আশ্বাস দেন।

মতবিনিময় সভায় শহরের ৭নম্বর ওয়ার্ড বিএনপির সভাপতি আখতারুজ্জামান নান্টু বলেন, ভোট এলেই শুধু মাঠ পর্যায়ের নেতাকর্মীদের স্মরণ করা হয়। ভোট চলে গেলে আর কোনো খবর নেন না নেতারা।

তিনি বলেন, ধানের শীষের ভোট করতে গিয়ে মিথ্যা মামলায় গ্রেফতার হয়ে জেলে ছিলাম; কিন্তু কোনো নেতা দেখতে যাননি। খোঁজ নেননি পরিবারের।

১৭নম্বর ওয়ার্ড বিএনপির সভাপতি আব্দুল গফুর বক্তৃতা দেওয়ার সময় কেঁদে ফেলেন। তিনি বলেন, রাজপথে আন্দোলন করতে গিয়ে ২৩টি মামলার শিকার হয়েছি। আমার পরিবারের ওপর এবং বাড়িঘরে হামলা হয়েছে। তিন বছর পালিয়ে বেড়িয়েছি। পুলিশ আমাকে না পেয়ে আমার নিরীহ ছেলেকে ধরে নিয়ে জেলে ঢুকিয়েছে। এক পর্যায়ে আত্মসমর্পণ করি। আমাকে জেলহাজতে পাঠানো হয়; কিন্তু কোনো নেতা খোঁজ রাখেননি। আমার পরিবারের পাশে কেউ দাঁড়াননি।

১নম্বর ওয়ার্ড বিএনপির সভাপতি শামীম হোসেন বলেন, এই নির্বাচন সামনে রেখে প্রতিপক্ষ প্রার্থীর সমর্থকরা আমাকে ভোটের প্রচার থেকে বিরত থাকতে হুমকি দিচ্ছে। আমাদের নিরাপত্তা কে দেবে?

২০নম্বর ওয়ার্ড বিএনপির সভাপতি রোস্তম আলী বলেন, দল করতে গিয়ে অনেক নেতাকর্মী জীবন দিয়েছেন, অনেকে হামলা-মামলার শিকার হয়েছেন। তাদের ও তাদের পরিবারকে মূল্যায়ন করা প্রয়োজন।

শহরের ২১টি ওয়ার্ডের বিএনপির নেতাকর্মী ও ভোট কেন্দ্র প্রধানদের নিয়ে এ মতবিনিময় সভা হয়। দলের তৃণমূলের নেতাকর্মীদের বক্তৃতায় এমন ক্ষোভের বহিঃপ্রকাশে অনেকটা বিচলিত হয়ে পড়েন জেলার শীর্ষ নেতারা।

সভার শুরুতে জেলা বিএনপির আহ্বায়ক ও উপনির্বাচনে দলীয় প্রার্থী গোলাম মোহাম্মদ সিরাজ উপনির্বাচনে নিজেকে খালেদা জিয়া ও তারেক রহমানের প্রার্থী হিসেবে উল্লেখ করেন। দলীয় নেতাকর্মীদের সব মতভেদ ভুলে ধানের শীষের পক্ষে একযোগে কাজ করার আহ্বান জানান তিনি।

সভায় ওয়ার্ড কমিটির নেতাকর্মীরা দলীয় শীর্ষ নেতাদের বিরুদ্ধে ক্ষোভ প্রকাশ করলেও ধানের শীষকে বিজয়ী করার অঙ্গীকার করেন। সুষ্ঠু নির্বাচন হলে কোন সেন্টারে কত ভোট ধানের শীষের পক্ষে নিতে পারবেন তারও আগাম পরিসংখ্যান তুলে ধরেন।

শহর বিএনপির সভাপতি মাহবুবর রহমান বকুলের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় আরও বক্তব্য দেন বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা ও উপনির্বাচনের সমন্বয়ক সাবেক এমপি হেলালুজ্জামান তালুকদার লালু, বিএনপি চেয়ারপারসনের আরেক উপদেষ্টা বগুড়া পৌর মেয়র অ্যাডভোকেট একেএম মাহবুবর রহমান, জেলা বিএনপির যুগ্ম আহ্বায়ক অ্যাডভোকেট সাইফুল ইসলাম, ফজলুল বারী তালুকদার বেলাল, রেজাউল করিম বাদশা, আলী আজগর হেনা, জয়নাল আবেদীন চাঁন, মাহবুবর রহমান হারেজ, আহসানুল তৈয়ব জাকির, লাবলী রহমান, হামিদুল হক চৌধুরী হিরু, সহিদ উন নবী সালাম প্রমুখ।


মন্তব্য


অন্যান্য