ময়মনসিংহ

কলমাকান্দায় ধর্ষণ মামলা করায় মাদ্রাসাছাত্রীকে অপহরণের হুমকি

প্রকাশ : ২১ জুন ২০১৯ | আপডেট : ২১ জুন ২০১৯

কলমাকান্দায় ধর্ষণ মামলা করায় মাদ্রাসাছাত্রীকে অপহরণের হুমকি

  কলমাকান্দা (নেত্রকোণা) প্রতিনিধি

নেত্রকোণার কলমাকান্দায় এক মাদ্রাসাছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে আরিফ মীর (২২) নামের এক যুবকের বিরুদ্ধে মামলা করায় ওই ছাত্রীকে অপহরণের হুমকি দেওয়া হচ্ছে বলে অভিযোগ করেছে তার পরিবার।

বৃহস্পতিবার এ অপহরণের হুমকি দেওয়া হয় বলে ওই স্কুলছাত্রীর পরিবার সাংবাদিকদের জানায়। এর আগে গত বুধবার বিকেলে ওই মাদ্রাসাছাত্রীর মা বাদী হয়ে নেত্রকোনা নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালে ওই মামলাটি করেন।

মামলার একমাত্র আসামি আরিফ মীর কলমাকান্দা উপজেলার কৈলাটী ইউনিয়নের বাহাম গ্রামের মো. নাসির মীরের ছেলে। ১৪ বছর বয়সী ওই ছাত্রী ঢাকার একটি মাদ্রাসায় সপ্তম শ্রেণিতে পড়ে। 

মামলার বরাত দিয়ে বাদী পক্ষের আইনজীবী অ্যাডভোকেট গাজীউর রহমান জানান, ছাত্রীটি ঈদের ছুটিতে ঢাকা থেকে বাড়িতে আসে। গত ৭ জুন রাত ৮টার দিকে নিজেদের ঘরে সে একা ছিল। তখন হঠাৎ আরিফ মীর এসে তার মুখে গামছা বেঁধে ধর্ষণ করে।

গত রোববার স্থানীয় প্রভাবশালী একটি মহল শালিস বৈঠকে আরিফ মীরকে ১০টি বেত্রাঘাত করে এবং ওই ছাত্রী ও তার পরিবারকে মামলা করতে নিষেধ করে। কিন্তু ওই ছাত্রীর মা গ্রাম থেকে পালিয়ে এসে বুধবার মামলাটি করেন। পরে বৃহস্পতিবার আদালত মামলার অভিযোগের বিষয়ে ৭ দিনের মধ্যে অনুসন্ধানী প্রতিবেদন দেওয়ার জন্য নেত্রকোনা ডিএসবির পরিদর্শক অভিরঞ্জন দেবকে নির্দেশ দেন। 

ওই ছাত্রীর মা বলেন, মামলা করার পর থেকে আসামি পক্ষ হুমকি দিচ্ছে। তারা বলছে, মামলা তুলে না নিলে আমার মেয়েকে অপহরণ করা হবে। আসামি পক্ষ ওই ছাত্রীর পরিবারের অন্য সদস্যদেরও শাসাচ্ছে বলে জানান তিনি।

এ বিষয়ে অভিযুক্ত আরিফের বাবা মো. নাসির মীরের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে অপহরণের হুমকি দেওয়ার বিষয়টি অস্বীকার করে বলেন, ধর্ষণের ঘটনাটি সাজানো। আমার ছেলে ও আমার পরিবারকে সমাজে হেয় করার অপচেষ্টা করছে একটি কুচক্রী মহল। আশা করি, আমরা ন্যায় বিচার পাব।



মন্তব্য


অন্যান্য