মিউজিক

‘অন্যের রিজিক মাইরা খাইয়া অনেকের বদহজম হইছে’

প্রকাশ : ১৯ আগষ্ট ২০১৯ | আপডেট : ১৯ আগষ্ট ২০১৯

‘অন্যের রিজিক মাইরা খাইয়া অনেকের বদহজম হইছে’

মারজুক রাসেল

  বিনোদন প্রতিবেদক

মারজুক রাসেল। কবি, গীতিকার ও অভিনেতা। বরেণ্য কণ্ঠশিল্পী আইয়ুব বাচ্চুর জন্মদিন উপলক্ষে সম্প্রতি সাউন্ডটেক থেকে প্রকাশ হয়েছে তার লেখা গান 'ভাবসূত্র'। আইয়ুব বাচ্চুর গাওয়া এই অপ্রকাশিত গান ও অন্যান্য প্রসঙ্গ নিয়ে কথা হয় তার সঙ্গে

'ফিসফাসফিস' অ্যালবামের জন্য রেকর্ড করা আইয়ুব বাচ্চুর 'ভাবসূত্র' গানটি কী কারণে অ্যালবামে রাখা হয়নি?

টেকনিক্যাল কোনো কারণে। সিডির স্পেস-স্বল্পতা হইতে পারে। এইটা নিয়া সেই সময় কোনো জিজ্ঞাসা তৈরি হয় নাই আমার। লেবেল-কর্তৃপক্ষ বিস্তারিত জানাতে পারবেন।

অ্যালবামটি প্রকাশের পর 'ভাবসূত্র' গানটি কি অন্য কোনো অ্যালবামের জন্য রেখে দেওয়ার পরিকল্পনা ছিল?

গান বানানো ও অ্যালবাম রিলিজ করা ছাড়া আমার আর কোনো প্ল্যান ছিল না। লেবেল-কর্তৃপক্ষের সঙ্গে, আই মিন সাউন্ডটেকের সঙ্গে, সাউন্ডটেকের বাবুল ভাই [সুলতান মাহমুদ ভাই]-এর সঙ্গে কথা বললে কিছু-একটা বা একাধিকটা জানতে পারবেন। এই অ্যালবামের পরেও বাচ্চু ভাইর [আইয়ুব বাচ্চু] সঙ্গে অনেক সলিড গান, জিঙ্গেল ইত্যাদি করার টাইম গেছে। বাচ্চু ভাইও এই গানটা নিয়া কোনোদিন কিছু বলেন নাই। সম্ভবত অন্যান্য কাজের প্রেশারে ভুলে গেছিলেন। আমিও সিনেমা, টেলিভিশন নিয়ে বেশি বিজি থাকায় গান নিয়া তেমন বিজি ছিলাম না। কিন্তু গানটার কথা মাঝে মাঝেই মনে পড়ত, বেশি মনে পড়া শুরু হইল বাচ্চু ভাইর প্রয়াণের পর। ইউটিউবফিউব আসার অনেক আগে থেকে অনেক পর পর্যন্ত মিউজিক-বাণিজ্যে মন্দা দেখা দেয়ায় দেশের মিউজিক ইন্ডাস্ট্রি-সংশ্নিষ্ট প্রায়-সবাই নানানরকমভাবে নিজেদের ক্রিয়েশন, উৎপাদন, বিপণন থেকে বিরত ছিলেন। সেই সময়ের চাপও গানের অনেক কিছু ভুলাইয়া আমাদের অন্য বিষয়ে মনোযোগী করাইছে, এমন হইতে পারে।

আইয়ুব বাচ্চুর অকালে বিদায়ের কারণেই কি মনে হয়েছে তার জন্মদিনে অপ্রকাশিত গান 'ভাবসূত্র' গানটি প্রকাশের কথা...

বাচ্চু ভাইয়ের জন্মদিনে প্রকাশের কথা আগে মনে হয় নাই। আগে মনে হইছে গানটার কথা। অবিরত মনে পড়ার ২/৩ দিন পরে আমি বাবুল ভাইর সঙ্গে যোগাযোগ করে গানটার কথা জানাই। তিনি খোঁজ নেন। কিছুদিন পর গানটা যে উঅঞ [উরমরঃধষ অঁফরড় ঞধঢ়ব]-এ ছিল ওইটা খুঁইজা বাইর করেন। উঅঞ থেকে গানটা উদ্ধারের সময় [উদ্ধারই বলি, কারণ উঅঞ-টার টেপের অবস্থা তেমন ভালো ছিল না, এত আগের উঅঞ!], উঅঞ নিয়ে কাজ করা সময় বাবুল ভাইকে বলি, '১৬ আগস্ট বাচ্চু ভাইর জন্মদিন, ওইদিন রিলিজ করা যায় যদি।' বাবুল ভাই এইরকম বললেন, 'আগে গানটা হাতে আসুক, করা যাবে।' তারপর তো হাতে আসল। এ প্রসঙ্গে বলা দরকার, 'প্রমিথিউস' ব্যান্ডের আনিসুজ্জামান আনিস ভাই উঅঞ-টা নিয়ে কাজ, এডিট, রিমাস্টার করে আমাদের, শ্রোতাদের শোনার উপযোগী করে দিয়েছেন।

'ভাবসূত্র' গানটি প্রকাশের পর শ্রোতার প্রতিক্রিয়া কেমন?

মাত্র ৩ দিন হইল বাইরাইছে। লিরিক-ভিডিও। ইউটিউবের ব্যাপার। লোকজন শুনছেন। ইউটিউব-লিঙ্কের কমেন্টবক্সে কমেন্ট করছেন। অনেকে আমার ফেসবুক আইডির মেসেঞ্জারে নানানরকম অনুভূতি জানাইছেন। আমার বা অন্যদের শেয়ারে শেয়ার, লাইক, কমেন্ট করেছেন। এইরকম। আসলে আমার যেইটা হইছে, সেইটা হইলো, গানটা মনে থাকা, খুঁজে পাওয়া ও প্রকাশ করতে পারার ভিতর দিয়ে আনন্দে, বেদনায় বাচ্চু ভাইকে মিস করতেছি অনেক।

এবার ভিন্ন প্রসঙ্গে আসি। কপিরাইট নিয়ে যে আন্দোলনে নেমেছিলেন, তা থেমে গেছে, নাকি এখনও চলছে?

কপিরাইট আইন বিষয়ে অস্বচ্ছ ধারণা ও ভুল জানা আমাদের দ্বিধাবিভক্ত করেছে। দ্বিধাবিভক্তির কারণে আন্দোলন এখনও অনেকের ক্ষেত্রে ব্যক্তিগত অভিযোগ, অভিমানের ভিতরেই আছে। এই মাধ্যমে দুর্নীতিও কম হয় নাই এবং কম হচ্ছে না। অনেক অপ্রীতিকর ঘটনাও ঘটছে। অন্যের রিজিক মাইরা খাইয়া অনেকের বদহজম হইছে; আরও হবে দেইখেন। তবে আইনি বিষয়ে অনেক অগ্রগতি টের পাইছি। সলিড কাগজপত্র ছাড়া কোথাও কোনো গান বাণিজ্যিকভাবে বেশিদিন চালাইতে পারতেছে না কেউ। এক জায়গা থিকা কাগজপত্রে সইস্বাক্ষর, বিনিময়ে বছরে একটা 'প্যাকেট' দেয়ার প্রস্তাবও আসছে আমার কাছে। লই নাই। সব গানের কপিরাইট শেষ কইরা, আইনকানুনের ভিতর দিয়া লেনদেনে যাব। আরও অগ্রগতি হবে। সময় তো লাগবেই। অনিয়ম, অন্যায় একদিন কমে আসে; অনেককে সাফার করতে হয়, ধ্বংস হইতে হয়। এই আর কী! 

আপনার লেখালেখি কেমন চলছে? 

চলছে। প্রফেশনাল লেখক হবার চেষ্টা বা জোর কোনোটাই করতে চাই নাই, যাই নাই। আড্ডা, আইলসামি, পড়া, দেখা, শোনা, ফেসবুকিং-এর চেয়ে কম চলছে আপনি ও অন্যরা আমাকে যেসব লেখার লেখক হিসাবে জানেন, সেইসব লেখা। 

অভিনয় নিয়ে এখনকার ব্যস্ততা কেমন?

অনিয়মিত। আমি তো অ্যাকাডেমিক-অভিনেতা বা অ্যাকাডেমিক কোনো কিছুই না। কেউ কারও গল্পে কাজ করতে বললে, আমার টাইম ইত্যাদিতে মিললে কইরা দিই; ডিরেক্টর, নাট্যকার, গল্প, সহশিল্পী ইত্যাদি 'বাছি' না।

ক্যামেরার পেছনে কাজের অভিজ্ঞতা থাকার পরও পরিচালনায় আসতে দেখা যায়নি। এর কারণ কী? 

কারণ অনেক ছিল। কারণগুলা কমতে-কমতে মাত্র কয়েকটায় এসে ঠেকছে। আগামীতে আসবো হয়তো, ভাসবো হয়তো, হাসবো হয়তো। 

নোট: সাক্ষাৎকারে মারজুক রাসেলের নিজস্ব কথ্যভঙ্গি অক্ষুণ্ণ রাখা হয়েছে- বি. স.

মন্তব্য


অন্যান্য