আইন ও বিচার

জি কে শামীমের ৭ দেহরক্ষী আবার রিমান্ডে

প্রকাশ : ০৬ অক্টোবর ২০১৯

জি কে শামীমের ৭ দেহরক্ষী আবার রিমান্ডে

  আদালত প্রতিবেদক

আলোচিত যুবলীগ নেতা গোলাম কিবরিয়া (জি কে) শামীমের সাত দেহরক্ষীকে আবারও রিমান্ডে নিয়েছে পুলিশ।

রোববার গুলশান থানার অস্ত্র মামলায় ঢাকা মহানগর হাকিম মইনুল ইসলাম এ আদেশ দেন।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা র‍্যাব-১ এর উপরিদর্শক শেখর চন্দ্র মল্লিক আসামিদের আদালতে হাজির করে তাদের সাতদিন রিমান্ডে নেওয়ার আবেদন করেন। রিমান্ড বাতিলের আবেদন করেন আসামিপক্ষের আইনজীবীরা।

রিমান্ড ও জামিন আবেদনের শুনানি শেষ আদালতের বিচারক প্রত্যেককে তিন দিন করে রিমান্ডের নেওয়ার আদেশ দেন। এর আগে গত পহেলা অক্টোবর মুদ্রা পাচারের মামলায় তাদের চারদিন করে রিমান্ডে নেওয়া হয়।

আসামিরা হলেন- দেলোয়ার হোসেন, মুরাদ হোসেন, জাহিদুল ইসলাম, শহীদুল ইসলাম, কামাল হোসেন, সামসাদ হোসেন ও আনিছুল ইসলাম। আসামিদের পক্ষে ছিলেন আইনজীবী আবদুর রহমান হাওলাদার।

গত ২০ সেপ্টেম্বর গুলশানের নিকেতনে ঠিকাদার ও যুবলীগ নেতা শামীমের ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে অভিযান চালিয়ে নগদ প্রায় দুই কোটি টাকা, পৌনে ২০০ কোটি টাকার এফডিআর, আগ্নেয়াস্ত্র ও মদ উদ্ধার করে র‌্যাব।

এছাড়া ১৬৫ কোটি টাকার বেশি এফডিআর পাওয়া যায়, যার মধ্যে তার মায়ের নামে ১৪০ কোটি ও ২৫ কোটি টাকা শামীমের নামে। একইসঙ্গে পাওয়া যায় মার্কিন ডলার, মাদক ও আগ্নেয়াস্ত্র। এ সময় শামীম ও তার সাত দেহরক্ষীকে গ্রেফতার করা হয়।

পরদিন তাদের বিরুদ্ধে গুলশান থানায় তিনটি মামলা করে র‌্যাব। এর মধ্যে অস্ত্র ও মুদ্রা পাচার মামলায় সবাইকে আসামি করা হলেও মাদক আইনের মামলায় শুধু শামীমকে আসামি দেখানো হয়েছে।

মন্তব্য


অন্যান্য