আন্তর্জাতিক

মন চুরি করে পালিয়েছে তরুণী, পুলিশ ডাকল যুবক!

প্রকাশ : ০৯ জানুয়ারি ২০১৯ | আপডেট : ০৯ জানুয়ারি ২০১৯

মন চুরি করে পালিয়েছে তরুণী, পুলিশ ডাকল যুবক!

প্রতীকী ছবি- আজকাল

  অনলাইন ডেস্ক

চুরি নয় ডাকাতির জিনিসও তো খুঁজে দিচ্ছে পুলিশ। তাহলে আর এমন কী জটিলতা! কিন্তু না; এটি যদি কোনও বস্তু না হয়; তাহলে তো একটু ঝামেলাই বটে। কোনও বস্তু নয় বরং মন খুঁজে দেওয়ার এক অনুরোধ এসেছে ভারতের একটি থানায়।

মহারাষ্ট্র রাজ্যের নাগপুরের একটি থানায় সম্প্রতি ঘটা এ ঘটনায় বেশ বেকায়দায় পড়তে হয়েছে পুলিশকে। যুবকের অনুরোধ উপেক্ষা করে তাকে জানিয়ে দিতে হয়েছে- না খোঁজ কোনওভাবেই পুলিশের দ্বারা সম্ভব নয়।

সংবাদ মাধ্যম আজকাল বলছে, ওই যুবক পুলিশের কাছে অভিযোগ জানান- এক তরুণী তার মন চুরি করে গা–ঢাকা দিয়েছে। তাকে খুঁজে বের করার দায়িত্ব নিতে হবে পুলিশকে। এই পরিস্থিতিতে স্বাভাবিকভাবেই হতবাক তারা।

পুলিশ চুরি যাওয়া জিনিস খুঁজে দিতে পারে, কিন্তু মন চুরি হলে তা কি করে খুঁজবে এখন সেটাই ভাবাচ্ছে তাদের। দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা এই আজব অভিযোগ পাওয়ার পর এই সমস্যার কীভাবে সমাধান করবে তার জন্য শীর্ষ পরিচালকের পরামর্শ নিচ্ছেন।

মন চুরি করলে তাকে ধরা যায়; ভারতীয় আইনেও এমন কোনও ধারা নেই। তাই যুবকের কথা শুনে পুলিশ কর্মীরা বিভ্রান্ত হয়ে পড়েন। এরপর যুবককে জানিয়ে দেওয়া হয়  এরকম কোনও আইন এ দেশে নেই। অতএব তাকে সাহায্য করা পুলিশের পক্ষে অসম্ভব।

খবরের সত্যতা স্বীকার করেছেন নাগপুরের পুলিশ কমিশনার ভূষণ কুমার উপাধ্যায়।

কিছু দিন আগে শহরের বিভিন্ন জায়গা থেকে চুরি হওয়া প্রায় ৮২ লক্ষ টাকার সামগ্রী মালিকদের কাছে ফিরিয়ে দেওয়ার একটি অনুষ্ঠানের আয়োজন করে নাগপুর পুলিশ। সেখানেই সাংবাদিকদের কমিশনার বলেন, চুরি হয়ে যাওয়া জিনিস আমরা খুঁজে দিতে পারি কিন্তু অনেক সময় এমন সমস্ত অভিযোগ আসে যার কিনারা করা আমাদের পক্ষেও অসম্ভব।

মন্তব্য


অন্যান্য