বিনোদন

রাহুল গান্ধীকে নিয়ে চলচ্চিত্র

প্রকাশ : ১০ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ | আপডেট : ১০ ফেব্রুয়ারি ২০১৯

রাহুল গান্ধীকে নিয়ে চলচ্চিত্র

রাহুল গান্ধীর ভূমিকায় অশ্বিনী কুমার -জি-নিউজ

  অনলাইন ডেস্ক

ভারতের সাবেক প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিংয়ের রাজনৈতিক জীবন নিয়ে তৈরি হয় 'দ্য অ্যাক্সিডেন্টাল প্রাইম মিনিস্টার'। এরপর শিবসেনা-প্রধান বালাসাহেব ঠাকরের জীবন নিয়ে 'ঠাকরে' সর্বশেষ প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির জীবনের গল্প নিয়ে নির্মিত হয় 'পিএম নরেন্দ্র মোদি'।

এবার জানা গেলো, ভারতীয় কংগ্রেসের প্রধান রাহুল গান্ধীকে নিয়ে নির্মিত চলচ্চিত্রের নাম।

জি-নিউজ জানায়, ভারতীয় কংগ্রেসের প্রধান রাহুল গান্ধীর জীবনি নিয়ে নির্মিত চলচ্চিত্রের নাম রাখা হয়েছে 'মাই নেম ইজ রাগা'। পরিচালনা করছেন রুপেশ পল। রাহুল গান্ধীর চরিত্রে অভিনয় করছেন অশ্বিনী কুমার।

সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে এ বছরে এপ্রিলে ছবিটি মুক্তি দেওয়ার পরিকল্পনা রয়েছে বলে জানিয়েছেন নির্মাতারা।

ছবিটির টিজার ইতিমদ্যেই প্রকাশ্যে এসেছে। টিজারে দেখা যায়, সাবেক প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং রাহুল গান্ধীকে বলছেন, 'সময় এসেছে, এবার আপনাকে দায়িত্ব নিতে হবে।' 

আরও দেখা গেছে, সংবাদ সম্মেলনে সাংবাদিকদের কঠিন কঠিন প্রশ্নের উত্তর দিচ্ছেন রাহুল গান্ধী। টিজার শেষ হয়েছে আসন্ন লোকসভা নির্বাচনের প্রেক্ষাপটের ঠিক আগে। ছবিতে যেমন রাহুল গান্ধীর জীবনের গুরুত্বপূর্ণ কিছু অধ্যায় দেখানো হয়েছে, পাশাপাশি তাকে ঘিরে তৈরি হওয়া রাজনৈতিক নানা বিতর্কও রয়েছে।

সংশ্লিষ্ট খবর


মন্তব্য যোগ করুণ

পরের
খবর

'নিজেকে ব্যাখ্যা করা কঠিন'


আরও খবর

বিনোদন
'নিজেকে ব্যাখ্যা করা কঠিন'

প্রকাশ : ২০ ফেব্রুয়ারি ২০১৯

মোশাররফ করিম

  অনলাইন ডেস্ক

মোশাররফ করিম। তারকা অভিনেতা। চ্যানেল আইয়ে আজ রাতে প্রচার হবে তার অভিনীত ধারাবাহিক নাটক 'বৃহস্পতি তুঙ্গে'। নাটক ও অন্যান্য প্রসঙ্গে কথা হয় তার সঙ্গে-

'বৃহস্পতি তুঙ্গে' নাটকটির দর্শক প্রতিক্রিয়া জানার সুযোগ হয়েছে? 

এখন একটা অস্থির সময় চলছে। এখন নির্মাতা ও অভিনয়শিল্পীর সঙ্গে দর্শকের খুব একটা যোগাযোগ হয় না বললেই চলে। তাই নাটকটি নিয়ে সরাসরি দর্শক প্রতিক্রিয়া জানার সুযোগ পাওয়া যায় না। তারপরও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে অনেকেই নাটকটি দেখে তাদের ভালোলাগার কথা জানিয়েছেন। আমিও শুরু থেকে চেষ্টা করেছি নাটকের মান বজায় রেখে কাজ করতে। এখনকার দর্শকরা মৌলিক গল্প পছন্দ করেন। তা এর মাধ্যমে আবারও প্রমাণিত। 

নাটকটির গল্প ভাবনা তো আপনার। নিজের ভাবনাগুলোয় কাজ করতে কেমন লাগে?

এককথায় বলতে গেলে বেশ ভালো লাগে। কারণ নিজের তৈরি চরিত্র সম্পর্কে আগে থেকেই অনেক ধারণা থাকে। ফলে কাজটি অনেক সহজ হয়ে যায়। এই নাটকটির গল্প নিয়ে ভেবেছিলাম অনেক আগে। প্রায়ই আমরা শুনি অমুকে তাকে ফাঁদে ফেলে সর্বস্বান্ত করে দিয়েছে। এই নাটকটির গল্পও ঠিক তেমন। নাটকে আমিও মানুষকে নানাভাবে ফাঁদে ফেলার চেষ্টা করি। একটা সময় দেখা যায় ফাঁদে ফেলতে গিয়ে নিজেই মানবিক তাড়নায় মানুষের সমস্যা সমাধানে কাজ শুরু করি। প্রতারক থেকে মানুষের উপকারী বন্ধু হয়ে উঠি।

মোশাররফ করিম

এখন যেসব নাটকে কাজ করছেন, সেগুলো আপনাকে কতটা আত্মতৃপ্তি দিচ্ছে?

আমরা যারা পেশাদার অভিনয়শিল্পী, তাদের কাছে অভিনয় রুটিনবাঁধা কাজ। তাই অভিনয়ে কতটুকু আত্মতৃপ্তি পাচ্ছি বা পাচ্ছি না, তা খুব একটা ভাবার সুযোগ হয় না। তাই বলে কাজের প্রতি শ্রদ্ধা-ভালোবাসা নেই, বিষয়টা এমনও নয়। যেটা করছি তা শতভাগ মনোযোগ দিয়েই করছি। আর ভালো-মন্দ বিচারের দায়িত্ব দর্শকের। এখনও আমি যে কোনো নাটক বা টেলিছবিতে কাজের আগে প্রথমে চিত্রনাট্য নিয়ে ভাবি। গল্প আর চিত্রনাট্য ভালো না হলে সেই কাজ আমাকে টানে না। তারপরও এখন মনে হয়, আরও একটু বাছাই করে কাজ করা উচিত। 

একজন মোশাররফ করিম নিজেকে ব্যাখ্যা করেন কী করে?

নিজেকে ব্যাখ্যা করা কঠিন। এ বিষয়টি আমি এড়িয়ে চলি। শুধু এটুকুই বলব, চেষ্টা করছি ভালো কিছু করার। এই চেষ্টা প্রতিদিনের। তাই তো প্রতিদিনই নিজের সঙ্গে নিজের প্রতিযোগিতায় অংশ নিচ্ছি। আর আমি খুব সাধারণ একজন মানুষ। অন্য আট-দশজন মানুষের মতো দিন শেষে ঘরে ফেরার টান আছে। 

চলচ্চিত্রে অভিনয়ের কী খবর?

সর্বশেষ ওয়াজেদ আলী সুমনের 'রঙিন ফানুস' চলচ্চিত্রে চুক্তিবদ্ধ হয়েছিলাম। এর কাজ এখনও শুরু হয়নি। নতুন চলচ্চিত্রের ব্যাপারে কথাবার্তা চলছে। ব্যাটে-বলে মিলে গেলে সবাইকে জানাব।

সংশ্লিষ্ট খবর

পরের
খবর

কলকাতার গায়ক প্রতীক চৌধুরী আর নেই


আরও খবর

বিনোদন
কলকাতার গায়ক প্রতীক চৌধুরী আর নেই

প্রকাশ : ২০ ফেব্রুয়ারি ২০১৯

প্রতীক চৌধুরী

  অনলাইন ডেস্ক

চির বিদায় নিয়ে চলে গেলেন কলকাতার বাংলা গানের জনপ্রিয় শিল্পী প্রতীক চৌধুরী। মঙ্গলবার রাতে হৃদ্‌রোগে আক্রান্ত হয়ে শেষনিশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি। তার মৃত্যুতে কলকাতার সঙ্গীত জগতে নেমে এসেছে শোকের ছায়া।

মৃত্যুকালে প্রতীক চৌধুরীর বয়স হয়েছিল ৫৫ বছর। কলকাতার সেন্ট্রাল অ্যাভিনিউয়ে অবস্থিত নিজের অফিসে হৃদ্‌রোগে আক্রান্ত হন এ শিল্পী। পরে দ্রুত তাকে হাসপাতালে নেওয়া হয়। হাসপাতাল থেকে আর বাড়ি ফেরা হলো না তার।  রাত আটটার দিকে চিকিৎসকেরা তাকে মৃত ঘোষণা করেন। 

স্ত্রী, এক ছেলে ও এক মেয়ে রেখে গেছেন তিনি। চলে যাওয়ার ক সপ্তাহ আগে পরিচালক অনিকেত চট্টোপাধ্যায়ের ছবির ‘হবুচন্দ্র রাজা, গবুচন্দ্র মন্ত্রী’ গানটি রেকর্ড করেন তিনি। কলকাতার বহু বাংলা গানের কণ্ঠ দিয়েছেন প্রতীক। দিয়েছেন সিনেমার নেপথ্য কণ্ঠও। পাশাপাশি বহু বিজ্ঞাপনেও কণ্ঠ রয়েছে তার। 

পরের
খবর

‘সাইজ ডাজেন্ট ম্যাটার’


আরও খবর

বিনোদন
‘সাইজ ডাজেন্ট ম্যাটার’

প্রকাশ : ১৯ ফেব্রুয়ারি ২০১৯

  অনলাইন প্রতিবেদক

একজন খাটো মানুষ সমাজে আরও খাটো হয়ে বসবসা করেন। সমাজে লম্বায় উচ্চ  মানুষের কাছে সবসময় হন অবহেলিত ও হাসির পাত্র। তার  ইচ্ছে অনিচ্ছার দাম থাকে না কোন। সমাজের মানুষ তাকে হাসির পাত্র হিসেবেই বিবেচনা করে। একজন খাটো মানুষের উপলব্দির জায়গা থেকেই নির্মাণ করা হয়েছে স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র ‘সাইজ ডাজেন্ট ম্যাটার’।

রাজনীতি ছবির পরিচালক বুলবুল বিশ্বাস-এর কাহিনী ও পরিচালনায় এতে অভিনয় করেছেন মৌসুমি হামিদ এবং শামীম হাসান সরকার। সম্প্রতি উত্তরা ও নিকুঞ্জের বিভিন্ন স্থানে শুটিং শেষ হয়েছে স্বল্পদৈর্ঘ্যটির। 

স্বল্পদৈর্ঘ্যটি নিয়ে পরিচালক বুলবুল বিশ্বাস বলেন,  গত বছর ফেব্রুয়ারীতে লিখেছিলাম গল্পটি। এ ধরণের কাজের জন্য যে পরিমাণ বাজেট লাগে তা ঠিকমত পাইনা বলে নির্মাণ করা হয়না। তার পরেও যে বাজেট পেয়েছি তার মধ্য দিয়েই সকলের প্রচেষ্টা এবং পরিশ্রমে কাজটা শেষ করতে পেরেছি।’

‘সাইজ ডাজেন্ট ম্যাটার’র গল্পটি আমাদের চারপাশেরই গল্প উল্লেখে করে পরিচালক বলেন, একজন খাটো মানুষকে যে সমাজ কতটা খাটো করে দেখে সেই উপলব্ধির জায়গা থেকে গল্পটা লেখা। ভীষণ চ্যালেঞ্জিং এবং কষ্টসাধ্য ছিলো কাজটা। শামীম অনেক পরিশ্রম করেছেন। আশা করি দর্শক কাজটা দেখে মজা পাবেন।’

টেস্টি ট্রিটের ব্যানারে নির্মাণ হয়েছে  ‘সাইজ ডাজেন্ট ম্যাটার । প্রতিষ্ঠানটির ইউটিউব চ্যানেলেই চলতি মাসের শেষের দিকে প্রচার হবে বলে জানান পরিচালক। 

সংশ্লিষ্ট খবর