বিনোদন

মেকআপ করা মেয়েদের বুদ্ধি নেই, এটা ভুল: ঐশ্বরিয়া

প্রকাশ : ১৬ মে ২০১৮

মেকআপ করা মেয়েদের বুদ্ধি নেই, এটা ভুল: ঐশ্বরিয়া

  অনলাইন ডেস্ক

নারীদের প্রতি সমাজের মানুষের বিরুপ মনোভাব নিয়ে ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন বলিউড তারকা ঐশ্বরিয়া রাই।

মেকআপ কিংবা নানা ধরনের পোশাক পরলেই মেয়েরা মেধাহীন- এমনটাও ঠিক নয় বলে মন্তব্য করেছেন তিনি।

এই তারকার মতে, একজন নারীর অন্য নারীকে বিচার করার সংস্কৃতি থেকে বের হয়ে আসতে হবে।

ফ্রান্সে কান চলচ্চিত্র উৎসবে লাল গালিচায় এবারও হেঁটেছেন ঐশ্বরিয়া। এ নিয়ে টানা ১৫ বছর তিনি কানে হাজির হলেন।

এই চলচ্চিত্র উৎসবের জুরি চেয়ারপার্সন কেট ব্ল্যানকেট ও অ্যাগনেস ভার্ডাসহ ৮২ জন নারী চলচ্চিত্রে জগতে লিঙ্গবৈষম্যের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানিয়েছেন।

ঐশ্বরিয়াও সেই প্রতিবাদে সামিল হয়ে এসব মন্তব্য করেন বলে টাইমস অব ইন্ডিয়ার এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে।

 তিনি বলেন, মেয়ে হিসেবে আমাদের পরস্পরের বিচার করা বন্ধ করতে হবে। কেউ মেকআপ করে বলেই এমন নয় যে তার মেধা নেই। এমন নয় যে তার মধ্যে কোনও সারবত্তা, সংবেদনশীলতা বা সহানুভূতি নেই।

বলিউের এই তারকা বলেন, আবার কেউ মেকআপ না করলেও সে নির্লিপ্ত বা উদাস নয়। এমন নয় যে সে খুব মেধাবী, খুব সিরিয়াস এবং হাসি-ঠাট্টা পছন্দ করে না।


সংশ্লিষ্ট খবর


মন্তব্য যোগ করুণ

পরের
খবর

আলিয়ার বাবা করণ জোহর!


আরও খবর

বিনোদন

  অনলাইন ডেস্ক

করণ জোহরের সিনেমা দিয়েই বলিউডে অভিষেক হয় আলিয়া ভাটের। প্রথম সিনেমা ‘স্টুডেন্ট অব দ্য ইয়ার’ দিয়েই বলিউড ধামাকা করেন মহেশ ভাট কন্যা। করণের হাত ধরেই বলিউডে এসেছিলেন আলিয়া। সেই থেকে শুরু। 

এরপর একের পর এক হিট সিনেমায় অভিনয় করেছেন আলিয়া। সেটা কখনও করণ জহরের সিনেমায় আবার কখনও অন্য কোনও পরিচালক, প্রযোজকের সঙ্গে। কিন্তু, অন্য যে কোনও  পরিচালক বা প্রোডাকশন হাউজের সঙ্গেই কাজ করুন না কেন, আলিয়া কিন্তু সব সময় করণকে ‘মেন্টর’ হিসেবে মনে করেন। আর তাই করণ জহরের জন্মদিনে আলিয়া কি লিখলেন জানেন?

বলিউডের জনপ্রিয় পরিচালকের জন্মদিনে তাকে অভিনন্দন জানিয়েছেন আলিয়া। পাশাপাশি করণকে নিজের শিক্ষক, বাবা এবং বন্ধু বলেও সম্বোধন করেছেন মহেশ ভাট কন্যা। 

শুক্রবার আলিয়া ভাট ইনস্টাগ্রামে করণের সঙ্গে একটি ছবি পোস্ট করে লেখেন, ‘আজ যার জন্মদিন তিনি একাধারে আমার বাবা, বন্ধু এবং শিক্ষক। শুভ জন্মদিন। আগের জন্মে নিশ্চয় কোনো পূণ্য কাজ করেছি এজন্য তোমার মতো একজন ভালো মানুষের সঙ্গ পেয়েছি। আমাকে আপনার সঙ্গ দেওয়ার জন্য ধন্যবাদ।' মুহূর্তের মধ্যেই এটি ভাইরাল হয়ে যায়।

উল্লেখ্য, ‘ব্রহ্মাস্ত্র’-এর শুটিং শেষ করে বর্তমানে ‘কলঙ্ক’-এর শুটিংয়ের জন্য প্রস্তুতি শুরু করেছেন আলিয়া ভাট। এই দুটি সিনেমাই করণ জোহরের ধর্মা প্রোডাকশনের ব্যানারে নির্মিত হচ্ছে। সূত্র: জি-নিউজ।

সংশ্লিষ্ট খবর

পরের
খবর

এবার মর্গান ফ্রিম্যানের বিরুদ্ধে যৌন হয়রানির অভিযোগ


আরও খবর

বিনোদন

মর্গান ফ্রিম্যান

  অনলাইন ডেস্ক

এবার হলিউডের বর্ষীয়ান অভিনেতা মর্গান ফ্রিম্যানের বিরুদ্ধে যৌন হয়রানির অভিযোগ তুললেন এক নারী। 

সিএনএন-কে দেওয়া সাক্ষাৎকারে ওই নারী দাবি করেছেন, ২০১৫ সালে ‘গোয়িং ইন স্টাইল’ ছবি তৈরির সময় স্টুডিওতে তার সঙ্গে অভব্য আচরণ করেছিলেন ফ্রিম্যান।

‘গোয়িং ইন স্টাইল’ নামে এই কমেডি ছবিতে ফ্রিম্যান ছাড়াও অভিনয় করেছেন মাইকেল কেইন, অ্যালান আরকিন। অভিযোগকারী নারী এই ছবিতে কাজ করেন প্রডাকশন সহকারী হিসেবে।

অভিযোগকারী নারীর দাবি, বিভিন্ন সময়ে কাজের ফাঁকে কুরুচিপূর্ণ ইঙ্গিত করতেন ফ্রিম্যান। এমনকি শরীরের নানা জায়গায় আপত্তিকরভাবে স্পর্শও করতেন। এমনটাই বিস্ফোরক অভিযোগ ৮০ বছর বয়সী অস্কারজয়ী অভিনেতার বিরুদ্ধে।

সাক্ষাত্কারে ওই নারী আরও অভিযোগ, 'একবার অন্তর্বাস পরেছি কি-না তা জানার জন্য স্কার্ট তোলার চেষ্টা করেছিলেন ফ্রিম্যান।' আর প্রকাশ্যে এমন কাজ করায় সহ অভিনেতা অ্যালান সে সময় প্রতিবাদ করেছিলেন বলেও দাবি করেছেন ওই নারী।

এর আগেও ফ্রিম্যানের বিরুদ্ধে যৌন হয়রানির অভিযোগ ওঠে। ২০১২ সালে ‘নাউ ইউ সি মি’ ছবির প্রোডাকশনের এক নারী কর্মীও অভিযোগ করেছিলেন, ফ্রিম্যানের হাতে যৌন হেনস্থার শিকার হয়েছিলেন তিনি। ওই নারীর শরীর নিয়ে নানা কটূক্তি করার অভিযোগ ওঠে ফ্রিম্যানের বিরুদ্ধে।

বিভিন্ন সময়ে সিএনএন-কে দেওয়া সাক্ষাত্কারে ১৬ জন ফ্রিম্যানের বিরুদ্ধে শ্লীলতাহানি, অভব্য আচরণের অভিযোগ তোলেন।

এদিকে যৌন হয়রানির অভিযোগ ওঠার পর এক বিবৃতিতে ক্ষমা চেয়েছেন মর্গান ফ্রিম্যান।

তিনি বলেছেন, নারীদের অস্বস্তিকর পরিস্থিতিতে ফেলা 'কখনোই তার উদ্দেশ্য ছিল না'।

বিবৃতিতে তিনি বলেন, 'আমাকে যারা চেনেন বা আমার সঙ্গে যারা কাজ করেছেন, তারা জানেন, আমি তেমন মানুষ নই যারা ইচ্ছাকৃতভাবে বা জেনে বুঝে কাউকে অস্বস্তির মধ্যে ফেলে।'

সংশ্লিষ্ট খবর

পরের
খবর

নভেম্বরেই বিয়ে দীপিকা-রণবীরের!


আরও খবর

বিনোদন

  অনলাইন ডেস্ক

বছরের শুরু থেকেই তাদের বিয়ের গুঞ্জন। যদিও তা নিয়ে কখনো প্রকাশ্যে কিছু বলেননি এ দুই তারকা। তবে শোনা যাচ্ছে, আগামী ১৯ নভেম্বর বিয়ে করছেন দীপিকা পাড়ুকোন ও রণবীর সিংহ।

বলিউডের একটি সূত্রে জানা গেছে, রণবীর নাকি জুলাই মাসেই বিয়ে করতে চেয়েছিলেন। তবে হাতে ছবির কাজ থাকায় বিয়ের দিন পিছিয়ে নভেম্বরে করা হয়েছে।

এ দিকে দীপিকা পাড়ুকোনের পরবর্তী ছবির কোনও ঘোষণা নেই। অনেকের মতে, বিয়ের জন্যই নাকি তিনি ছবির কাজ নিচ্ছেন না। বেঙ্গালুরু থেকে দীপিকার মা-বাবাও মুম্বাইয়ে এসেছেন। কনে বিয়ের কেনাকাটাও শুরু করে দিয়েছেন। বিদেশে নয়, মুম্বাইয়ে বসবে বিবাহবাসর। তবে যতক্ষণ না পাত্র-পাত্রী ঘোষণা দিচ্ছেন, ততক্ষণ সবটাই জল্পনার স্তরে। আবার অন্য দিক দিয়ে দেখলে, না জানিয়ে বিয়ে করাই এখন বলিউডে ট্রেন্ড। দীপিকা এখন সোনম কাপুরের মতো বিয়ের এক সপ্তাহ আগে বিবৃতি দেবেন, না কি আনুষ্কা শর্মার মতো টুইট করে নিজের বিয়ের খবর জানাবেন, সে দিকেই তাকিয়ে তার অগণিত ভক্ত। সূত্র: আনন্দবাজার।