অর্থনীতি

ঋণের ২৫% এসএমইতে দিতে ২০২৪ সাল পর্যন্ত সময় পেল ব্যাংকগুলো

প্রকাশ : ০৫ সেপ্টেম্বর ২০১৯ | আপডেট : ০৫ সেপ্টেম্বর ২০১৯

ঋণের ২৫% এসএমইতে দিতে ২০২৪ সাল পর্যন্ত সময় পেল ব্যাংকগুলো

  সমকাল প্রতিবেদক

ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্প (এসএমই) খাতে ঋণ বিতরণ নীতিমালায় শিথিলতা আনল বাংলাদেশ ব্যাংক। ২০২১ সালের মধ্যে ব্যাংকগুলোর মোট ঋণের অন্তত ২৫ শতাংশ এসএমইতে বিতরণের যে বাধ্যবাধকতা ছিল তা বাড়িয়ে ২০২৪ সাল করা হয়েছে। এসএমই ঋণের খাত ভিত্তিক বিভাজনের ক্ষেত্রে উৎপাদনশীল ও সেবায় ঋণ বাড়ানোর সময়সীমার ক্ষেত্রেও শিথিলতা আনা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার বাংলাদেশ ব্যাংকের এ সংক্রান্ত নির্দেশনা ব্যাংকগুলোর প্রধান নির্বাহীদের কাছে পাঠানো হয়েছে।

কটেজ, মাইক্রো, ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্প উদ্যোগের সংজ্ঞা ও ঋণ সীমা, এসএমই অর্থায়ন, নারী উদ্যোগ এবং পুনঃঅর্থায়নের ক্ষেত্রে ইতিপূর্বে বাংলাদেশ ব্যাংক থেকে জারি করা সব সার্কুলার একত্রিত করে একটি মাস্টার সার্কুলার করা হয়েছে। এর আগে ২০১৬ সালেও আগের সব নির্দেশনা একত্রিত করে মাস্টার সার্কুলার করেছিল কেন্দ্রীয় ব্যাংক।

সার্কুলারে বলা হয়েছে, ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানের মোট ঋণ স্থিতির মধ্যে এসএমই খাতে ঋণের পরিমাণ প্রতিবছর ১ শতাংশ হারে বৃদ্ধি অব্যাহত রাখতে হবে। এভাবে ২০২৪ সালে মোট ঋণের অন্তত ২৫ শতাংশ এসএমইতে উন্নীত করতে হবে। আর এসএমই খাতে বিতরণ হওয়া ঋণের কমপক্ষে ৫০ শতাংশ দিতে হবে কটেজ, মাইক্রো ও ক্ষুদ্র উদ্যোক্তাদের।

এছাড়া একটি টেকসই এসএমই খাত গঠনের লক্ষ্যে ২০২৪ সালের মধ্যে এসএমইর উৎপাদনশীল খাতে ৪০ শতাংশ, সেবায় ২৫ শতাংশ ও ব্যবসায় সর্বোচ্চ ৩৫ শতাংশ ঋণ বিতরণ করতে হবে বলেও সার্কুলারে উল্লেখ করা হয়েছে।

মন্তব্য


অন্যান্য