ঢালিউড

চয়নিকার বিশ্বসুন্দরীতে পরীমনি ‘শোভা’

প্রকাশ : ১৮ জুন ২০১৯ | আপডেট : ১৮ জুন ২০১৯

চয়নিকার বিশ্বসুন্দরীতে পরীমনি ‘শোভা’

বিশ্বসুন্দরী ছবির শুটিংয়ে মনিরা মিঠু, চয়নিকা চৌধুরী ও পরীমনি

  বিনোদন প্রতিবেদক

মঙ্গলবার থেকে শুরু হলো নাটক নির্মাতা চয়নিকা চৌধুরীর প্রথম সিনেমা ‘বিশ্বসুন্দরী’র শুটিং। ফরিদপুর থেকে সিনেমাটির ক্যামেরা চালু খবর জানালেন পরিচালক নিজেই। আজ থেকে ছবিটির প্রথম লটের শুটিংয়ে অংশ নিয়েছেনরীমনি, ফজলুর রহমান বাবু ও মনিরা মিঠুসহ অনেকেই।

ছবিটির দ্বিতীয় লটের শুটিং শিল্পী তালিকায় যোগ হবেন অভিনেত্রী সুবর্ণা মুস্তাফা, চিত্রনায়ক সিয়াম আহমেদ ও আনন্দ খালেদ।

ছবির নাম বিশ্বসুন্দরী হলেও পরী এখানে শোভা চরিত্রে অভিনয় করছেন। তার নায়ক হিসেবে আছেন জনপ্রিয় নায়ক সিয়াম। ছবিটির মাধ্যমে প্রথমবার জুটি হয়ে চলচ্চিত্র করছেন তারা। 

ছবির নায়িকা এখন অভিনয় নিয়ে দারুন সিরিয়াস বলে জানালেন কদিন আগে। তাই বিশ্বসুন্দরী ছবিটিকে পরীর সিরিয়াস হয়ে চলচ্চিত্রে ফেরার গল্পই বলা যায়। এ ছবির মধ্য দিয়েই হয়তো পরী আবার চলচ্চিত্রের নতুনভাবে নিজেকে মনোনিবেশ করাবেন। মানুষ হিসেবে একটু ডানপিটে পরী। মন্তব্য পরিচালকদের। সেই ডানপিটে স্বভাবটাই এবার সিনেমার জন্য প্রয়োগ করবেন। করবেন ভালো ভালো ছবি। 

 ‘গিয়াসউদ্দিন সেলিমের স্বপ্নজাল ছবিটির গল্পের মতো গল্প খোজছিলাম দীর্ঘদিন ধরেই। মনে মনে সিদ্ধান্তও নিয়েছিলাম এমন হৃদয় ছোঁয়া গল্প না হলে আর ছবিই করবো না। ‘বিশ্বসুন্দরী’র গল্প হৃদয় ছোঁয়া। ছবিটিতে আমি শোভা চরিত্রে অভিনয় করছি। দারুন একটি চরিত্র। এটি বড় পাওয়া হিসেবেই দেখছি আমি। বললেন, ঢাকাই ছবির আলোচিত নায়িকা পরীমনি। 

প্রায় ৪০০ একক ও ১৮টি ধারাবাহিক নাটকের পরিচালক চয়নিকা চৌধুরীর প্রথম চলচ্চিত্র ‘বিশ্বসুন্দরী’। ছবিটি নিয়ে তাই তারও উত্তেজনার শেষ নেই। জানালেন,  ‘দীর্ঘদিন ধরে সিনেমাটির গল্প, চরিত্র ও শুটিং লোকেশন নিয়ে কাজ করেছি। শুটিং পূর্ববর্তী কাজে সন্তুষ্ট না হয়ে আমরা কেউই এই স্বপ্নের প্রকল্পের কাজ শুরু করতে চাইনি। আমি আশাবাদী সবাই মিলে দর্শকদের মন ছুঁয়ে যাবার মত একটি চলচ্চিত্র উপহার দিতে পারবো।’ 

এর আগে  ৩ এপ্রিল রাজধানীর একটি অভিজাত হোটেলে সিনেমাটির নাম ও অভিনয়শিল্পীদের সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দেওয়া হয়। সে অনুষ্ঠানের প্রায় দুই মাস পর শুরু হলো ছবিটির শুটিং।  সান মিউজিক অ্যান্ড মোশন পিকচার্স লিমিটেড প্রযোজিত বিশ্বসুন্দরীর কাহিনী, চিত্রনাট্য ও সংলাপ লিখেছেন রুম্মান রশীদ খান।

মন্তব্য


অন্যান্য