ঢাকা

শাসন করায় বাবাকে রড দিয়ে পিটিয়ে হত্যা!

প্রকাশ : ০৯ নভেম্বর ২০১৮ | আপডেট : ০৯ নভেম্বর ২০১৮

শাসন করায় বাবাকে রড দিয়ে পিটিয়ে হত্যা!

  নরসিংদী প্রতিনিধি

নরসিংদীতে মাদকাসক্ত ছেলের হাতে করিম মিয়া (৫৫) নামে এক ব্যক্তি খুন হয়েছেন বলে অভিযোগ উঠেছে। শুক্রবার সকাল সাড়ে ৮ টার দিকে নরসিংদী পৌর এলাকার চৌয়ালায় এই ঘটনা ঘটে।

নিহত করিম মিয়া একজন মুদি দোকানি। মাদকাসক্ত ছেলে মামুন ঘটনার পর থেকে পলাতক।

স্থানীয়রা জানান, সকালে মামুন তার মায়ের কাছে মদকের জন্য টাকা চেয়ে না পেয়ে বাকবিতণ্ডায় জড়িয়ে পড়েন। এ সময় করিম মিয়া মামুনকে ধমক দেন। এতে মামুন ক্ষিপ্ত হয়ে লোহার রড দিয়ে দিয়ে করিম মিয়াকে এলোপাথারি পেটানো শুরু করেন। এ সময় ছেলের হাত থেকে বাচঁতে করিম মিয়া দৌড়ে ঘর থেকে বাহির হয়ে ঢাকা-নরসিংদী সড়কে আসলেও রেহাই পাননি। মামুন তাকে ধাওয়া করে সড়কের ওপর পিটিয়ে হত্যা করেন। এ সময় আশপাশের লোকজন ছুটে আসলে মামুন পালিয়ে যান। পরে পুলিশ এসে নিহতের লাশ উদ্ধার করে। 

নরসিংদী সদর মডেল থানার ওসি (তদন্ত) মো. সালাউদ্দিন ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে হাজির হয়ে নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য নরসিংদী সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে। ঘাতক মামুনকে ধরতে অভিযান শুরু করেছে পুলিশ।

সংশ্লিষ্ট খবর


মন্তব্য যোগ করুণ

পরের
খবর

চিকৎসক ও নার্স ছাড়াই অপারেশন, ক্লিনিক মালিকের কারাদণ্ড


আরও খবর

ঢাকা

শান্তিলতা ক্লিনিক অ্যান্ড ডায়াগনস্টিক সেন্টারে ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযান -সমকাল

  গোপালগঞ্জ প্রতিনিধি

গোপালগঞ্জে চিকিৎসক ও নার্স ছাড়াই অপারেশনের দায়ে শান্তিলতা ক্লিনিক অ্যান্ড ডায়াগনস্টিক সেন্টারের মালিক দেশবন্ধু বিশ্বাসকে (৫০) তিন মাসের কারাদণ্ড দিয়েছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত।

শুক্রবার সন্ধ্যায় ভ্রাম্যমাণ আদালতের বিচারক ও কোটালীপাড়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা এ.এস.এম মাহফুজুর রহমান এই আদেশ  দেন।

দণ্ডপ্রাপ্ত দেশবন্ধু বিশ্বাসের বাড়ি কোটালীপাড়া উপজেলার লাটেঙ্গা গ্রামে।

ভ্রাম্যমাণ আদালতের বিচারক এ.এস.এম মাহফুজুর রহমান বলেন, গত ৯ নভেম্বর কোটালীপাড়া উপজেলার পীরারবাড়ি গ্রামের বিধান হালদার গর্ভবতী স্ত্রী বিথী হালদারকে শান্তিলতা ক্লিনিকে ভর্তি করেন। ক্লিনিকের মালিক দেশবন্ধু বিথী হালদারের সিজারিয়ান অপারেশন করেন। এরপর বিথী হালদার অসুস্থ্য হয়ে পড়লে তাকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। বর্তমানে তিনি সেখানে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। এ ব্যাপারে ওই গৃহবধূর স্বামী বিধান হালদার আমার কাছে একটি লিখিত অভিযোগ করেন। 

তিনি বলেন, অভিযোগের প্রেক্ষিতে শুক্রবার সন্ধ্যায় শান্তিলতা ক্লিনিকে অভিযান চালানো হয়। এ সময় বিথী মন্ডলের সিজারিয়ান অপারেশনের বিষয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করলে এক চিকিৎসক অপারেশন করেছেন বলে জানান দেশবন্ধু। পরে ভ্রাম্যমাণ আদালতের সঙ্গে থাকা কোটালীপাড়া উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. প্রেমানন্দ মন্ডল মোবাইলে ওই চিকিৎসকের সঙ্গে কথা বললে জানান তিনি অপারেশন করেননি। এমনকি গত দুই মাসে তিনি কোটালীপাড়া আসেননি বলেও জানান। স্বাক্ষ্য-প্রমাণ গ্রহণ শেষে ক্লিনিকে চিকিৎসক ও নার্স ছাড়া অপারেশন করার অপরাধে দেশবন্ধু বিশ্বাসকে ৩ মাসের কারাদণ্ডাদেশ দেওয়া হয়েছে।

কোটালীপাড়া থানার ওসি মোহাম্মদ কামরুল ফারুক বলেন, শনিবার দণ্ডপ্রাপ্তকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানানো হয়েছে।

সংশ্লিষ্ট খবর

পরের
খবর

শ্রীনগরে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ যুবক নিহত


আরও খবর

ঢাকা

প্রতীকী ছবি

  মুন্সিগঞ্জ প্রতিনিধি

মুন্সিগঞ্জের শ্রীনগরে পুলিশের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ মো. তাজেল (৩৫) নামে এক যুবক নিহত হয়েছেন। 

পুলিশের দাবি তিনি উপজেলার শীর্ষ সন্ত্রাসী। তার বিরুদ্ধে থানায় ১০টি মামলা রয়েছে। 

শুক্রবার গভীর রাতে উপজেলার বাড়ৈখালি এলাকায় এই ঘটনা ঘটে। এ সময় ঘটনাস্থল থেকে একটি একনলা বন্ধুক, তিনটি গুলি, তিনটি ছুরি ও ১০৫ পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়েছে।

শ্রীনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. ইউনুচ আলী জানান, নিহত তাজেল দীর্ঘদিন যাবত এলাকায় বিভিন্ন সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড চালিয়ে আসছিলেন। তার বিরুদ্ধে শ্রীনগর থানায় হত্যা, মাদক ব্যবসা, অবৈধ অস্ত্র মজুদ, ডাকাতি, পুলিশের ওপর হামলাসহ বিভিন্ন অভিযোগে ১০টি মামলা রয়েছে।

তিনি জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে শুক্রবার সকালে যশোরের মনিরামপুর থেকে তাজেলকে গ্রেফতার করা হয়। তাকে রাতে শ্রীনগর থানায় নিয়ে আসে পুলিশ। পরে  তার দেওয়া তথ্য অনুযায়ী গভীর রাতে উপজেলার মদনখালি উচ্চবিদ্যালয় এলাকায় অস্ত্র উদ্ধারে যায় পুলিশ। এ সময় তাজেলের সঙ্গীরা পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে। আত্মরক্ষার্থে পুলিশও পাল্টা গুলি চালায়। এ সময় তাজেল পুলিশের গাড়ি থেকে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করেন। পরে গুলিবিনিময় শেষে ঘটনাস্থলে তাজেলকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় পড়ে থাকতে দেখা যায়। এ সময় তাকে উদ্ধার করে ষোলঘর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেওয়া হলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

ওসি আরও জানান, বন্দুকযুদ্ধে এক এএসআইসহ পুলিশের ৩ সদস্য আহত হয়েছেন। তাদের উন্নত চিকিৎসার জন্য মুন্সিগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

সংশ্লিষ্ট খবর

পরের
খবর

গাজীপুরে বিএনপির ২ শতাধিক নেতাকর্মীর আওয়ামী লীগে যোগদান


আরও খবর

ঢাকা

   গাজীপুর প্রতিনিধি

গাজীপুরে বিএনপি ও অঙ্গ-সংগঠনের দুই শতাধিক নেতাকর্মী আনুষ্ঠানিকভাবে আওয়ামী লীগে যোগদান করেছেন। শুক্রবার দুপুরে টঙ্গীতে মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি অ্যাডভোকেট আজমত উল্লা খানের বাসভবনে আজমত উল্লা খান এবং সিটি মেয়র মো. জাহাঙ্গীর আলমের হাতে ফুল দিয়ে নেতাকর্মীরা আওয়ামী লীগে যোগ দেন।

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের ঠিক আগ মুহূর্তে গাছা ইউনিয়ন বিএনপির সাবেক সভাপতি মোশারফ হোসেন ও সাধারণ সম্পাদক আ. হামিদসহ দুই শতাধিক নেতাকর্মী এদিন আওয়ামী লীগে যোগ দেন। এ সময় জেলা, থানা, ওয়ার্ডের যুবদল, ছাত্রদল, শ্রমিক দল ও কৃষক দলের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

বিএনপি থেকে আওয়ামী লীগে যোগদানকারী নেতাকর্মীদের উদ্দেশে সিটি মেয়র জাহাঙ্গীর আলম বলেন, সরকারের উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে এবং আগামী নির্বাচনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাতকে শক্তিশালী করতে আপনাদের অপরিসীম ভূমিকা থাকবে বলে প্রত্যাশা করছি। নবাগতদের আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দের সঙ্গে সমন্বয় করে ঘরে ঘরে নৌকার জন্য ভোট প্রার্থনা করতে হবে। আওয়ামী লীগ সরকারের উন্নয়ন সাধারণ মানুষের কাছে পৌঁছে দেওয়ার জন্য কাজ করতে হবে।

সংশ্লিষ্ট খবর