ক্রিকেট

জাফরের রাজকপাল

প্রকাশ : ১৮ জুলাই ২০১৯ | প্রিন্ট সংস্করণ

জাফরের রাজকপাল

ছবি: ফাইল

  আলী সেকান্দার

জাতীয় দলের ব্যাটিং পরামর্শক হিসেবে শ্রীলংকা সফরে যাচ্ছেন। কোচিং পেশায় বলতে গেলে আনকোরা তিনি। বিসিবিতে চাকরি নেওয়ার আগে কোনো পর্যায়েই তার কোচিং করানোর অভিজ্ঞতা সম্পর্কে জানাতে পারেননি বোর্ডের কর্মকর্তারা। এরপরও বিসিবি পরিচালক ও জাতীয় দলের ভারপ্রাপ্ত কোচ খালেদ মাহমুদের আশীর্বাদ পেয়ে আপাতত ওয়াসিমের নামের পাশে জুড়ে যাচ্ছে 'আন্তর্জাতিক কোচ'-এর তকমা।

প্রিমিয়ার লিগ খেলতে এসে কোচ হওয়ার প্রস্তাব পেলেন। আবাহনীর হয়ে মৌসুম শেষ করে যোগ দিলেন বিসিবি একাডেমির ব্যাটিং পরামর্শক কোচের চাকরিতে। বিসিবি হাইপারফরম্যান্স দলের সঙ্গে দেড় মাস কাজ করতেই দেওয়া হলো প্রমোশন। সেটাও আবার যেনতেন প্রমোশন নয়। রীতিমতো জাতীয় দলের ব্যাটিং পরামর্শক হিসেবে শ্রীলংকা সফরে যাচ্ছেন তিনি। রাজকপালই বলতে হবে ওয়াসিম জাফরের!

কোচিং পেশায় তিনি বলতে গেলে আনকোরা। বিসিবিতে চাকরি নেওয়ার আগে কোনো পর্যায়েই তার কোচিং করানোর অভিজ্ঞতা সম্পর্কে জানাতে পারেননি বোর্ডের কর্মকর্তারা। কোনো ধরনের কোচিং কোর্সও করা নেই বলে জানান বিসিবির একাধিক কর্মকর্তা। এরপরও বিসিবি পরিচালক ও জাতীয় দলের ভারপ্রাপ্ত কোচ খালেদ মাহমুদের আশীর্বাদ পেয়ে আপাতত ওয়াসিমের নামের পাশে জুড়ে যাচ্ছে 'আন্তর্জাতিক কোচ'-এর তকমা।

জাফর টেস্ট ক্রিকেটে নিজের ইনিংস গড়তেন অনেক সময় নিয়ে। কিন্তু ভারতীয় এ ক্রিকেটারের কোচিং ক্যারিয়ারের উন্নতি যেন রকেটের গতিতে! এ সম্পর্কে বিসিবি গেম ডেভেলপমেন্টের চেয়ারম্যান খালেদ মাহমুদ সুজনের কাছে জানতে চাওয়া হলে তিনি বলেন, 'ওয়াসিম জাফরের ব্যাটিং অভিজ্ঞতা বিশাল। এই অভিজ্ঞতার জন্যই তাকে নিয়োগ দেওয়া হয়েছে। সে তার অভিজ্ঞতাগুলো আমাদের ক্রিকেটারদের শেখাবে।'

গত মে মাসেই ঢাকায় প্রিমিয়ার লিগ খেলার ফাঁকে ভারতের ঘরোয়া ক্রিকেটেও খেলেছেন জাফর। মাঠের ক্রিকেট এখনও ছাড়েননি তিনি। শিগগিরই হয়তো অবসর-ভাবনা নেই। সেখানে বিদেশি দলের ব্যাটিং পরামর্শকের চাকরি পেয়ে যাওয়াটা বড্ড সৌভাগ্যের ব্যাপার। যে কারণে ভারতের সংবাদমাধ্যমও জাফরের এই নিয়োগকে গুরুত্বসহকারে প্রচার করেছে। শ্রীলংকা সফরে এই ভারতীয়কে ব্যাটিং পরামর্শক নিয়োগ দেওয়ার কারণ জানতে চাওয়া হলে বিসিবি ক্রিকেট পরিচালনা বিভাগের চেয়ারম্যান আকরাম খান বলেন, 'বিশ্বকাপের পর জাতীয় দলের কোচিং স্টাফের বেশিরভাগ পদ শূন্য ঘোষণা করা হয়েছে। জাতীয় দল পরিচালনা করার মতো এ মুহূর্তে কোনো কোচ নেই। এ জন্য জাফরকে জাতীয় দলের ব্যাটিং পরামর্শক করা হয়েছে।'

জাতীয় দলের নিয়মিত ব্যাটিং কোচ দক্ষিণ আফ্রিকার নিল ম্যাকেঞ্জি বিশ্বকাপের পর ছুটি নিয়েছেন। শ্রীলংকা সফরেও পাওয়া যাবে না তাকে। যে কারণে একপ্রকার বাধ্য হয়েই ব্যাটিং কোচ খুঁজতে হয় আকরামকে। কিন্তু কোচিং লাইসেন্সহীন একজনকে কেন? এ প্রশ্ন করা হলে আকরাম বলেন, 'তার যে কোনো লেভেলের কোচিং কোর্স করা নেই, সেটা আমার জানার কথা নয়। বিসিবি সিইও (নিজামউদ্দিন চৌধুরী) ভালো বলতে পারবেন। লেভেল ওয়ান বা লেভেল টু কোচেস কোর্স ছাড়া তাকে বোর্ড কেন নিয়োগ দিয়েছে, সিইও-ই ভালো জানেন।' আইসিসির সভায় যোগ দিতে বিসিবি সিইও ইংল্যান্ডে থাকায় এ ব্যাপারে তার মন্তব্য পাওয়া যায়নি।

জাফর ভারতের সাবেক আন্তর্জাতিক ক্রিকেটার। ৩১ টেস্ট খেলে পাঁচটি সেঞ্চুরি ও ১১টি হাফসেঞ্চুরিতে ৩৪.১০ গড়ে ১,৯৪৪ রান করেছেন। দুটি ওয়ানডে খেলে সর্বোচ্চ ১০ রান করেছেন তিনি। তবে ২৫৩টি প্রথম শ্রেণির ম্যাচ খেলে ১৯ হাজার ৪৭ রান তার। ৫৭ সেঞ্চুরি আর ৮৮ হাফসেঞ্চুরি পাওয়া জাফরের এই ফরম্যাটে গড় ৫১.১৯। ১১২টি লিস্ট-এ ম্যাচে চার হাজার ৭৪৫ রান তার, গড় ৪৫.১৯। ব্যাটসম্যান হিসেবে সমীহ পাওয়ার সব রেকর্ডই আছে তার। কিন্তু ভালো ব্যাটসম্যান হওয়া আর কোচিং করানো এক নয় বলে মনে করেন জাতীয় দলের সাবেক কোচ সরওয়ার ইমরান, 'কোচিং করতে হলে কোচিংয়ে জড়িত থাকতে হবে। কোচিং আর খেলা এক নয়। সে জন্য প্র্যাকটিক্যালি এবং কোচিংয়ের জন্য কোর্সগুলো করতে হবে।'

একাডেমি বা হাইপারফরম্যান্স ইউনিটকে জাতীয় দলের চেয়েও বেশি পেশাদার কোচের জায়গা মনে করা হয়। এই পর্যায়ে ক্রিকেটারদের বেসিক শেখানোরও প্রয়োজন পড়ে। যে কারণে প্রতিটি দেশেই কোচিং শিক্ষায় শিক্ষিতদেরই নিয়োগ দেয়। বিসিবিও এত দিন তা-ই করে এসেছে। হঠাৎ করেই আনকোরা একজনকে একাডেমির ব্যাটিং পরামর্শক কোচ করা নিয়ে বিসিবির অন্দরমহলেই রয়েছে নানা প্রশ্ন। জিজ্ঞাসা করলে সরওয়ার ইমরানের জবাব, 'এ রকম সাবেক ক্রিকেটার তো আমাদের দেশেও আছে। তাহলে দেশের ক্রিকেটারদের সুযোগ দেওয়া হয় না কেন?'

বিসিবির পরিচালক হলেও কোচিং খালেদ মাহমুদ সুজনের পেশা। প্রান্তিক পর্যায় থেকেই কোচিং ক্যারিয়ার শুরু করেছেন। ২০০৯ সালে জাতীয় দলে সহকারী কোচ হওয়ার আগেই কোচিং কোর্স করেছেন তিনি। কোচিং পেশার সর্বোচ্চ লেভেল থ্রি কোর্স করা আছে তার। এই পেশার আদ্যোপান্ত জানা মাহমুদ কেন আনকোরা জাফরকে এই সিঁড়ি তৈরি করে দিচ্ছেন, তা এক রহস্য বটে।

মন্তব্য


অন্যান্য