চট্টগ্রাম

রোহিঙ্গাদের জোর করে ফেরত পাঠানো হবে না: মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রী

প্রকাশ : ০৯ জুন ২০১৯ | আপডেট : ০৯ জুন ২০১৯

রোহিঙ্গাদের জোর করে ফেরত পাঠানো হবে না: মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রী

রোববার উখিয়ার কুতুপালং ক্যাম্পে সরকারি কর্মকর্তা ও রোহিঙ্গা নেতাদের সঙ্গে মতবিনিময় আ. ক. ম. মোজাম্মেল হক। ছবি: সমকাল

  উখিয়া (কক্সবাজার) প্রতিনিধি

মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রী আ. ক. ম. মোজাম্মেল হক বলেছেন, মিয়ানমারে পূর্ণ নাগরিকত্ব না পাওয়া পর্যন্ত জোর করে কোনো রোহিঙ্গাকে ফেরত পাঠানো হবে না। রোববার উখিয়ার কুতুপালং ক্যাম্পে সরকারি কর্মকর্তা ও রোহিঙ্গা নেতাদের সঙ্গে মতবিনিময়কালে মন্ত্রী এ কথা বলেন।

মন্ত্রী রোহিঙ্গা নেতাদের কাছে ক্যাম্পে কী কী সমস্যা রয়েছে জানতে চান। জবাবে রোহিঙ্গা নেতারা বলেন, চিকিৎসা, শিক্ষা, রাত্রিকালীন নিরাপত্তার ঘাটতি রয়েছে। এ ছাড়া অনেক এনজিও রোহিঙ্গাদের সঙ্গে সমন্বয় না করে দায়সারাভাবে কাজ করছে। এসব সমস্যা ও অভিযোগ মন্ত্রী গুরুত্ব সহকারে শোনেন ও সমাধানের আশ্বাস দেন। তিনি এসব কথা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে অবহিত করবেন বলেও জানান।

আরকান সোসাইটি ফর ইফস হিউম্যান রাইটসের সভাপতি মাস্টার মহিবুল্লাহ মন্ত্রীকে বলেন, আশিয়ান ২ বছরে ৫ লাখ রোহিঙ্গা মিয়ানমারে ফেরত নেওয়ার যে কথা বলছে, তা উদ্দেশ্যপ্রণোদিত। রোহিঙ্গাদের অবাধ চলাফেরার স্বাধীনতা, জমি-জমা ও শিক্ষার ব্যবস্থা না করলে কখনও রোহিঙ্গারা ফেরত যাবে না।

এ সময় বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন শরণার্থী ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশনার আবুল কালাম, উখিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নিকারুজ্জামান চৌধুরী, সহকারী পুলিশ সুপার (উখিয়া সার্কেল) নাহিয়ান আদনান তাহিয়ান, ক্যাম্প ইনচার্জ রেজাউল করিম, পাবেল ও রোহিঙ্গা নেতারা।

মন্তব্য


অন্যান্য