এশিয়া

জাদু দেখাতে গিয়ে নদীতে নিখোঁজ জাদুকর!

প্রকাশ : ১৭ জুন ২০১৯ | আপডেট : ১৮ জুন ২০১৯

জাদু দেখাতে গিয়ে নদীতে নিখোঁজ জাদুকর!

  অনলাইন ডেস্ক

কলকাতার হাওড়ার ব্রিজ সংলগ্ন গঙ্গা তীরে তখন হাজারো মানুষের ভিড় জমেছে। কারণ ম্যানড্রেক নামের ৪১ বছর বয়সী একজন জাদুকর জাদু দেখাতে নেমেছেন নদীতে। কিন্ত দীর্ঘসময় পার হলেও উঠে আসেননি জাদুকর।  ধারণা করা হচ্ছে, তীব্র স্রোতে নদীর পানিতেই তলিয়ে গিয়েছেন তিনি।

জাদুকরের আসল নাম চঞ্চল লাহিড়ী। বাড়ি কলকাতার উপকন্ঠে চণ্ডীতলায়। দীর্ঘদিন ধরেই জাদু দেখিয়ে আসছিলেন তিনি। 

রবিবার সাড়া জাগানো ম্যাজিক শো দেখাতে নদীতে নামেন চঞ্চল। কিন্তু একদিন পার হলেও এখন পর্যন্ত তার খোঁজ পাওয়া যায়নি। 

জানা গেছে, পূর্ব পরিকল্পনা অনুযায়ী ওইদিন দুপুরে শিকল দিয়ে হাত-পা বেঁধে ক্রেনের সাহায্যে চঞ্চলকে নদীতে ফেলেন তার সহকারীরা। তখন তার শরীরে ৩২ ফুট লম্বা শিকল জড়ানো ছিল। সেই সঙ্গে শিকলের বিভিন্ন জায়গায় তালা এবং পায়ে দড়ি বাঁধা ছিল। জাদুটি ছিল,শিকল বাঁধা অবস্থাতে তাকে নদীতে ফেলা হবে।কিছুক্ষণ পর তালা-দড়ি খুলে পানি থেকে উঠে আসবেন তিনি। কিন্তু 'ডেথ ডাইভ' দেখাতে নেমে নদীতে নিঁখোজ হয়ে যান ম্যানেড্রেক।

ঘটনার সময় উপস্থিত জয়ন্ত শাও নামের একজন ফটোসাংবাদিক বিবিসিকে জানান তিনি চঞ্চলকে জিজ্ঞেস করেছিলেন জাদুর জন্য এভাবে জীবনের ঝুঁকি নিচ্ছেন কেন? উত্তরে চঞ্চল তাকে জানিয়েছিলেন, যদি কাজটা ঠিক মতো তিনি করতে পারেন তাহলে সেটা হবে জাদু। আর যদি কোনও ভুল করেন তাহলে তা হবে মর্মান্তিক।

জানা গেছে, এবারই প্রথমবার নয়, এর আগেও চঞ্চল জীবনের ঝুঁকি নিয়ে ২০ বছরেরও বেশি সময় আগে বাক্সবন্দী অবস্থায় পানির নীচে জাদু দেখিয়েছিলেন। সেই সময় তিনি নিরাপদে বের হতেও পেরেছিলেন। 

জয়ন্ত শাও বলেন, ‘ চঞ্চল এইবার পানি থেকে উঠতে পারবে না এটা কখনো ভাবিনি।’

ইউটিউবে চঞ্চল লাহিড়ীর নিজস্ব একটি চ্যানেল আছে যেখানে তিনি নিজের জাদুবিদ্যার নানা কর্মকাণ্ড পোস্ট করতেন। 

মন্তব্য


অন্যান্য